রবিবার, ২২শে জুলাই, ২০১৮ ইং ৭ই শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

পরীমনির বাগদান নিয়ে নানা মত!

বিনোদন প্রতিবেদক : শনিবার সারা দিনই গিয়াসউদ্দীন সেলিমের ‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং নিয়ে ব্যস্ত ছিলেন ঢাকাই ছবির হালের আলোচিত নায়িকা পরীমনি। সকালে শুরু হয়ে শুটিং চলেছে মধ্যরাত পর্যন্ত। এর মধ্যে রাত বারোটা এক মিনিটে নিজের ফেসবুক পেজে একটি ছবি পোস্ট করেন পরীমনি। হাতে হাত রাখা সেই ছবিতে লেখা, ‘ইতিহাস করে রাখব ভালোবাসা। কথা দিলাম।’
9e4cbe1ecae2047d19901811216178b8-Nas--14-ছবিটি আপলোড করার পরপরই অনেকের মধ্যেই বিষয়টি নিয়ে কৌতূহল সৃষ্টি হয়। ভক্তদের পাশাপাশি বাদ যায়নি সংবাদকর্মীদের দৃষ্টিও। বিষয়টি সম্পর্কে জানতে সরাসরি কথা হয় পরীমনির সঙ্গে। আজ রোববার সকালে তিনি কাছে দাবি করেন যে এটি তাঁর বাগদানের ছবি। হঠাৎ করেই নাকি বিষয়টি ঘটেছে। আর ঢাকার বাইরে থাকায় ব্যাপারটি কাউকে জানাতেও পারেননি।
হুট করে এমন কাণ্ড ঘটানোর ব্যাপারটি নিয়ে পরীমনি বলেন, ‘আমি নিজেও বুঝতে পারিনি কী করে কী হয়ে গেল। ভালোবাসা আসলেই এক আজব জিনিস। বাস্তবে তা অনুধাবন করলাম। তাই বাগদান সেরে ফেললাম।’
বাগদান যদি সেরেই ফেলেন তাহলে আপনার হবু বরের নাম কী? এমন প্রশ্নে পরীমনি বলেন, ‘এটা তো এখন বলা যাবে না। তাহলে তো সব আকর্ষণই শেষ হয়ে যাবে। বিষয়টা চমক হিসেবে রাখতে চাই।’ তিনি বলেন, ‘তবে এটুকু বলতে চাই, যাঁর সঙ্গে আমার বাগদান হয়েছে, তিনি নাটক কিংবা সিনেমা জগতের কেউ না। তিনি একজন ব্যবসায়ী।’
পরীমনি বলেন, ‘ভালোবাসা দিবসকে স্মরণীয় করে রাখতেই এ সিদ্ধান্ত।’পরীমনির ফেসবুক পেজ থেকে নেওয়া।

আপনি বলছেন বাগদান হয়েছে। তাহলে কবে নাগাদ বিস্তারিত জানাবেন? এমন প্রশ্নে পরীমনি উত্তর দিয়েছেন, ‘আশা করছি তিন বছরের মধ্যেই বিস্তারিত জানাতে পারব। তবে এখন যেহেতু হাতে হাত রাখার ছবি দিলাম, সামনে কোনো একদিন দুজনের একসঙ্গে মুখোমুখি বসা ছবিও দেব। তখনই সবাই কিছুটা হলেও পরিষ্কার হবেন। জানতে পারবেন, আমার বর কে?’
48aa080b635de6f0585e6626e084d332-Porimoni-Screenshotএদিকে যে ছবির সেটে বাগদানের বিষয়টি ঘটেছে বলে দাবি করেছেন পরীমনি, সেই ছবির পরিচালক গিয়াসউদ্দীন সেলিমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘বাগদানের মতো কিছু ঘটলে তো আমি কিছুটা হলেও টের পেতাম। মধ্যরাত পর্যন্ত সে তো আমার ছবিরই শুটিং করেছে। বিষয়টি তার পাগলামি ছাড়া আর কিছুই না। আমার মনে হচ্ছে, মজা করে সে এ ব্যাপারটি ঘটিয়েছে।’
‘স্বপ্নজাল’ ছবির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট একজন নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানিয়েছেন, পুরো ব্যাপারটি তাঁর স্টান্টবাজি ছাড়া আর কিছুই না। এটা আলোচনায় থাকার একটা কৌশলও বলতে পারেন।’
এদিকে চলচ্চিত্র-সংশ্লিষ্টদের কেউ কেউ আবার বলছেন, কিছুদিন আগে পরীমনির বিয়ে নিয়ে যে খবরটি বেরিয়েছিল তা ধামাচাপা দিতেই এমন কৌশলের আশ্রয় নিয়েছেন তিনি। এ ব্যাপারে পরীমনির দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে প্রথম আলোকে তিনি সরাসরি বলেন, ‘কে কী বলল, তাতে আমার কিছু যায়-আসে না। আমি তাঁদের এমন কথাকে আশীর্বাদ হিসেবেই নিচ্ছি। আমি বাগদান সেরে ফেলেছি—এটা শতভাগ নিশ্চিত।’ প্রথম আলো