মঙ্গলবার, ১১ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং ২৭শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

নির্বাচন গ্রহণযোগ্য না হলে জাতি মহাসংকটে পড়বে : আ স ম রব

news-image

২ মার্চ স্বাধীনতার পতাকা উত্তোলন দিবসের স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি’র) সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন, নির্বাচন গ্রহণযোগ্য না হলে জাতি মহাসংকটে পড়বে। নির্বাচন গ্রহণযোগ্য করতে হলে এখন থেকেই তার পরিবেশ তৈরি করতে হবে।
শুক্রবার বিকেল ৩টায় জাতীয় প্রেসক্লাব মিলনায়তনে স্বাধীনতার পতাকা উত্তোলন দিবস জাতীয় উদ্যাপন কমিটির উদ্যোগে এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

আ স ম রব বলেন, সরকারের বক্তব্য ও কর্মকান্ড দেশকে কার্যত এক পাক্ষিক নির্বাচনের দিকে নিয়ে যাচ্ছে। মন্ত্রী, এমপিরা সরকারি কোষাগারের টাকা খরচ করে, সরকারি যানবাহন, হেলিকপ্টার ব্যবহার করে জনসভা করে ভোট চেয়ে বেড়াচ্ছেন অথচ বিরোধী দলকে রাস্তায় দাড়াতেও দিচ্ছে না। এ ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনও নীরব। এ ধরনের আচরণ নির্বাচনী লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড এর ব্যবস্থা আগে থেকেই বিনষ্ট করছে। এতে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের পথ রুদ্ব করে দেয়া হচ্ছে।

পতাকা উত্তোলনকারী রব বলেন, ৭১ সালে জাতি যখন দিক দিশাহীন তখন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে স্বাধীনতার জন্য পতাকা উত্তোলন করেছিলাম। কিন্তু স্বাধীনতার ৪৬ বছর পরেও স্বাধীন দেশের উপযোগী রাজনীতি ও রাষ্ট্র ব্যবস্থাপনা গড়ে না উঠার কারণে দেশে আজও গণতন্ত্র, সুশাসন, ন্যায় বিচার এবং অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন অনুপস্থিত। দেশে প্রাদেশিক ব্যবস্থা প্রবর্তন, দ্বি-কক্ষ বিশিষ্ট পার্লামেন্ট কায়েম ও পার্লামেন্টের উচ্চ কক্ষ থেকে নির্বাচনকালীন সরকার গঠনের বিধান করেই বর্তমান অবস্থার পরিবর্তন সম্ভব।

তিনি বলেন, রোহিঙ্গা শরনার্থীদের আগমন দেশের জন্য ক্রমাগত সংকট বৃদ্ধি করছে। সমস্যা সমাধানের জন্য বহু পাক্ষিক আলোচনার পরিবর্তে দ্বি-পাক্ষিক আলোচনা তেমন ফলদায়ক হয়নি।

স্বাধীনতার পতাকা উত্তোলন দিবস জাতীয় উদ্যাপন কমিটির উদ্যোগে উদ্যাপন কমিটির আহবায়ক ডা. জাফরুল্লাহ্ চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব শহীদ উদ্দিন মাহমুদ স্বপনের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী, সংবিধান বিশেষজ্ঞ ড. কামাল হোসেন, নাগরিক ঐক্যের আহবায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব:) আবদুল মান্নœান, জেএসডি সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেক রতন, অ্যাড. সুব্রত চৌধুরী ও অধ্যাপক হুমায়ুন কবির হীরু এমুখ।

আমাদের সময়.কম