বুধবার, ২৭শে মার্চ, ২০১৯ ইং ১৩ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

খুনিদের বিচার দেখে যেতে চান স্কুলছাত্রী কৃত্তিকার মা

news-image

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি : বিচার চান ধর্ষণের পর নির্মমভাবে হত্যার শিকার খাগড়াছড়ির দীঘিনালার স্কুলছাত্রী কৃত্তিকা ত্রিপুরার মা অনুমতি ত্রিপুরা।

একথা জানিয়ে তিনি বলেন, অনুমতি ত্রিপুরা বলেন, আমরা দরিদ্র মানুষ। তিন ছেলেমেয়ের মধ্যে লেখাপড়া করে বড়ো হয়ে ওঠার ভরসা ছিল কৃত্তিকারই। কিন্তু নরপশুরা আমার বুকের ধনকে বীভৎস কায়দায় শেষ করে দিয়েছে। খুনিদের বিচার দেখে যেতে চাই।

গত ২৮ জুলাই স্কুলের টিফিন বিরতিতে বাড়িতে গিয়ে প্রথমে ধর্ষণ এবং হত্যার শিকার হয় পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী কৃত্তিকা।

দেশে-বিদেশে আলোচিত ওই ঘটনার দুই সপ্তাহ পার হতে চললেও পুলিশ এখনো কোনও কিনারা করতে পারেনি। এই ঘটনার পর থেকে তিন পার্বত্য জেলা, ঢাকা ও চট্টগ্রামসহ দেশের অনেক স্থানে কৃত্তিকার হত্যাকারীদের বিচার ও সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে কর্মসূচি পালিত হয়।

এদিকে, দীঘিনালা উপজেলার নয়মাইল এলাকায় তার পরিবার ও স্বজনরা সামাজিকভাবে ধর্মীয় আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াও কয়েক’শ মানুষের জন্য মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করেছেন শুক্রবার।

এছাড়া কৃত্তিকার আত্মার শান্তির জন্য বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে তার সমাধিস্থলে প্রদীপ প্রজ্জলন ও পুস্পার্ঘ্য প্রদানের কর্মসূচিও নেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ ত্রিপুরা কল্যাণ সংসদের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক অনন্ত ত্রিপুরা জানান, ঘটনার পর বেশ কয়েকজনকে আটক করে রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ। অতীতেও এমনটা ঘটেছে। কিছুদিন যাওয়ার পর প্রশাসনের উদ্যোগ থেমে যায়। তাই আমরা এই ঘটনায় নিয়মিত ফলোআপের পাশাপাশি একটি লিগ্যাল এইড টীম গঠনের সিদদ্ধান্ত নিয়েছি। এবই একই সাথে নিয়মতান্ত্রিক কর্মসূচিও অব্যাহত রাখবো।

খাগড়াছড়ির পুলিশ আলী আহমদ খান দাবি করেন, অপরাধী যে হোক তাকে আইনের আওতায় আনতে পুলিশ তৎপর।

এ জাতীয় আরও খবর

টিউমারে ক্যান্সারের জীবাণু নেই, শঙ্কামুক্ত মোশাররফ রুবেল

স্বাধীনতা দিবস অনুষ্ঠানে মুক্তিযোদ্ধাদের রাজাকার বললেন তিনি

অর্থমন্ত্রী হঠাৎ গাড়িবহর থামিয়ে তরমুজ বিক্রেতাকে ডাকলেন

‘গণহত্যার স্বীকৃতি পেতে দেরি হয়েছে স্বাধীনতা বিরোধীদের জন্য’

স্বাধীনতা স্তম্ভে ফুল দিয়ে ফেরার পথে ফরিদপুরে বিএনপি নেতাদের ওপর হামলা

রেল লাইনে গাড়ি রেখে চালক আড্ডায় মগ্ন, অতঃপর…

‘ডিম মারা’র কারণ জানালো সেই বালক

মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ: ৬ পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা

স্ত্রী-শ্বশুর ‘আপোষ’ করতে চান হিরো আলমের সঙ্গে

সরকারি চাকরিজীবীদের শিগগিরই বেতন বাড়ছে

মৌলভীবাজারে একই পরিবারের পাঁচজনের ইসলাম ধর্ম গ্রহণ

যেখানে দুই বিয়ে না করলে যাবজ্জীবন জেল !