রবিবার, ২১শে জুলাই, ২০১৯ ইং ৬ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

আখাউড়ায় দিনে দুপুরে সন্ত্রাসী হামলা আটক ৪

news-image

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি : আখাউড়া পৌরশহরের তারাগন গ্রামে মাদক ব্যবসায়ী ও ছিনতাইকারীরা দেশীয় অস্ত্রসহ হামলা করে। তারা মটর সাইকেল যোগে দেশীয় অস্ত্র – রাম দা, ছুরি, বলম, বেনার,চাইনিজ কুড়াল ইত্যাদি নিয়ে একই গ্রামের পশ্চিম পাড়ার মৃত মন মিয়ার ছেলে শাহ আলম মিয়া, নোয়াব মিয়া ও শাহজাহান মিয়ার বাড়িতে হামলা ও ভাংচুর করে।

তারাগন পশ্চিম পাড়ার নোয়াব মিয়ার মেয়ের জামাই ও তার কর্মচারী রিপন সাহা কে ২৪ এপ্রিল বুধবার রাত ৮ টার সময় দহ্মিণ ইউনিয়নের নুরুপুর লামার বাড়ি থেকে তপু ও তার সহযোগী সন্ত্রাসীরা মিলে কিডনাপ করে। তখন ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদরের কান্দিরপাড়া গ্রামের আরিফ মিয়ার ব্যবসার ১২ হাজার টাকা মূল্যের মালামালের প্যাকেট ও নগদ ২০ হাজার টাকা ছিনতাই করে নিয়ে যায়।

পরে আরো টাকা আাদায়ের জন্য সারারাত ওদের আটকে রেখে মারধর করে সকালে ছেড়ে দেয়। এ ঘটনার প্রতিবাদে বিচার চাওয়ার কারণে সন্ত্রাসীরা এ হামলা করে।

হামলাকারীরা হলো নুরপুর লামার বাড়ির আওয়ামী লীগ নেতা ও হীরাপুর সরকারী প্রাথমিত বিদদ্যালয়ের সভপাতি আতিকুর রহমান বাবুল ভুইয়ার দুই ছেলে সায়েম (২৫) ও জেমি (২৩) আটককৃত অপর আসামীরা হলো তারাগন পশ্চিম পাড়ার কাজী শাফায়েত মিয়া ও তার ছেলে কাজী তপু মিয়া(২৮) কাজী সুমন মিয়া সহ আরো ১০-১২ জন।

এসময় খবর পেয়ে আখাউড়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে পূর্ব মাদক মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত আসামী, মাদকব্যবসায়ী ও মাদক সেবনকারী তপু ও তার বাবা শাফায়েত মিয়া, সায়েম ও জেমি কে গ্রেফতার করেন।

জানতে চাইলে আখাউড়া থানার ওসি সৈয়দ রসুল আহমেদ নিজামী বলেন আখাউড়ার মধ্যে কোনো সন্ত্রাসীর ঠাই নাই। তাছাড়া উক্ত আসামীরা মাদক সেবনকারী ও মাদক ব্যবসায়ী আসামীদের উপযুক্ত মামলা দায়ের করে আদালতে প্রেরণ করা হবে।