বুধবার, ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং ৩রা আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

পুরুষ থেকে নারী হতে এক বাংলাদেশির অস্ত্রোপচার গুজরাটে

news-image

নিউজ ডেস্ক।। গুজরাটের ভডোদারায় গিয়েছেন পুরুষ থেকে নারী হতে আগ্রহী এক বাংলাদেশি। ভডোদারার চিকিৎসা ক্ষেত্রে এটি তৈরি করেছে একটি নতুন রেকর্ড। এই প্রথম সেখানে কোনো বিদেশির ওপর লিঙ্গ রূপান্তরে অস্ত্রোপচার চালানো হলো। উপরন্তু  চিকিৎসকরা এর আগে কোনো রোগীর স্তনের জন্য ফ্যাট গ্রাফটিংয়ের কাজ করেনি। এটাও একটা নতুন রেকর্ড। এর আগে তারা ১০ থেকে ১২ জন ভারতীয়কে নারীতে রূপান্তরে অস্ত্রোপচার করে। খবর ১৯শে মে’র টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

২৬ বছর বয়সী বাংলাদেশি ‘রোগী’ পেশায় বাবুর্চি। গুজরাটে যাওয়ার পূর্বে ডাক্তারদের বিষয়ে তিনি সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে জানতে পারেন। এবং অনলাইনে যোগাযোগ করেই শহরভিত্তিক হাসপাতালটি সে বেছে নেয়। টাইমস লিখেছে, সেক্স রিঅ্যাসাইমেন্ট সার্জারি (এসআরএস)র ক্ষেত্রে ভডোদারা একটি নতুন অধ্যায় খুলেছে। “আমরা প্রথমে বাংলাদেশি ডাক্তারদের পরামর্শ নিয়েছি কিন্তু তারা বলেছেন তারা এসআরএস সুবিধা দিতে সক্ষম নন। তারা আমাদের পরামর্শ দেয় যে, এই ধরনের অস্ত্রোপচার ভারতে সঠিকভাবে সম্পন্ন করা হয়, বলেছেন এসআরএসের রোগী ভাই ইকবাল। ভাইয়ের মতে, তাদের স্যালুন ব্যবসায় রয়েছে। কিন্তু তার ভাই পুরুষ হিসাবে অস্বস্তিকর অবস্থায় ছিল এবং প্রায়ই লিঙ্গ পরিবর্তনের বিষয়ে ইচ্ছা ব্যক্ত করেছিলেন।

“আমরা এর আগে ১০ থেকে ১২টি সফল অপারেশন সফলভাবে সম্পন্ন করেছি, তবে বিদেশ থেকে রোগীর সার্জারি পরিচালনার জন্য এটিই প্রথম।” বলেছেন প্রস্রাব বিশেষজ্ঞ ও অ্যান্ড্রোলজিস্ট সঞ্জীব শাহ। এই অপারেশনের টিমে অন্যদের মধ্যে ছিলেন প্লাস্টিক সার্জন ডা. উমেশ শাহ, ফিজিয়াট্রিস্ট ড. গৌতম আমিন এবং মেডিকো-লিগ্যাল বিশেষজ্ঞ ডা. বিজয় শাহ।

“আমরা এর আগে সিলিকন স্তন ইমপ্লান্ট করেছি। কিন্তু এই ক্ষেত্রে আমরা বিকল্প বেছে নিলাম। যা আমরা আগে করিনি। আমরা দেখলাম রোগী মোটা। তার শরীরে বেশ চর্বি আছে। তাই আমরা স্তন তৈরিতে ফ্যাট গ্রাফটিং বেছে নিয়েছি, যা একটি নতুন স্তন পুনর্গঠন কৌশল হিসাবে প্রথম পরীক্ষা,” বলেছেন প্লাস্টিক সার্জন।

“রোগী যখন ফ্যাট গ্রাফটিং অস্ত্রোপচার সম্পন্ন করেছে। অণ্ডকোষ অপসারণ করেছে। এখন আমরা তার হরমোন থেরাপির দিকে যাব। এরপর তার জরায়ু পুনর্গঠনের (ভেজাইনাল রিকন্সট্রাকশন) দিকে যাব।”  মূত্র বিশেষজ্ঞ মন্তব্য করেন। “এসআরএস বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে, আমাদের জানা উচিত যে, রোগী লিঙ্গভীতি রোগে আক্রান্ত কিনা, কোনো ব্যক্তি তার জন্মগত যৌনতা এবং লিঙ্গের কারণে নিজেদের দুর্দশাগ্রস্ত ভাবে কিনা। এই অস্ত্রোপচার অপরিবর্তনীয় এবং তাদের জন্য মনস্তাত্ত্বিক কাউন্সিলিং আরো গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে,” আমিন বলেন। উৎস: মানবজমিন।

এ জাতীয় আরও খবর

অ’স্ত্রসহ যুবলীগ নেতা খালেদ আটক

২ ধ’র্ষককে ফাঁ’সিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের নির্দেশ

উড়ন্ত সূচনার পর দ্রুত ফিরে গেলেন তিন ব্যাটসম্যান, খেলাটি দেখুন এখানে(সরাসরি)

যুবলীগ নেতা খালেদের বাসায় তল্লাশি চালাচ্ছে র‍্যাব

ফকিরাপুলে ক্যাসিনোতে অভিযান : ১৪২ নারী-পুরুষ আটক

ভালো শুরুর পর ফিরে গেলেন দুই ওপেনার, খেলাটি দেখুন (সরাসরি)

ব্যাটিংয়ে ঝড় তুলছেন লিটন, খেলাটি দেখুন (সরাসরি)

হিন্দি চাপিয়ে দিলে মানবো না, অমিত শাহকে রজনীকান্ত

পেঁয়াজ ৮০ টাকাই, ‘সয়ে গেছে মানুষের’

টস হেরে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ,দলে তিন পরিবর্তন, অভিষেক দু’জনের খেলাটি দেখুন (সরাসরি)

তিনদিনে সৌদি থেকে ফিরলেন ৩৮৯ বাংলাদেশি

রোহিঙ্গাদের এনআইডি করে কোটিপতি ইসি’র অফিস সহায়ক জয়নাল!