শনিবার, ১৬ই নভেম্বর, ২০১৯ ইং ২রা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ভারতের লোকসভায় ৭৮ নারী, ২৭ মুসলিম সাংসদ

news-image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক।।  ভারতের সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে নিরঙ্কুশ বিজয় অর্জন করে আবারও সরকার গঠন করতে যাচ্ছে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট। অন্যান্যবারের তুলনায় অনেক ক্ষেত্রেই ভিন্নতা রয়েছে এবারের লোকসভা নির্বাচনে। তবে এরমধ্যে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হচ্ছে, রেকর্ড সর্বোচ্চ সংখ্যক নারী সাংসদ পেতে যাচ্ছে এবারের লোকসভা। সেই সাথে ১৯৮০ সালের পর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ মুসলিম সাংসদদের উপস্থিতি ঘটতে যাচ্ছে সেখানে।

১৯৫২ সালের পর এবারই প্রথম ১৪ শতাংশ মহিলা সাংসদ জিতেছেন লোকসভা নির্বাচনে। তবে সংখ্যায় তা বিগত যেকোন সময়ের চেয়ে বেশি। এবারের ৫৪২ জন সাংসদের মধ্যে ৭৮ জনই নারী। এরমধ্যে শুধু পশ্চিমবঙ্গ এবং উত্তর প্রদেশ থেকেই জয় লাভ করেছেন ১১ জন। যদিও এখন পর্যন্ত ভারতের সংসদে ৩৩ শতাংশ সংরক্ষিত নারী আসন বিলটি পাস হয়নি।

ভারতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের তথ্য মতে, এবার মোট ৭২৪ জন নারী প্রার্থী লোকসভা নির্বাচনে লড়েছিলেন। পঞ্চদশ এবং ষোড়শ লোকসভা নির্বাচনে যথাক্রমে ৫২ এবং ৬৪ জন মহিলা সাংসদ জিতেছিলেন। এবার আগের ৪১ জন মহিলা সাংসদের সাথে নতুন নারী সাংসদ হিসেবে যুক্ত হয়েছেন স্মৃতি ইরানি, প্রজ্ঞা সিং ঠাকুর, লকেট চ্যাটার্জি, মহুয়া মৈত্রের মত তারকা প্রার্থীরা। সদ্য সমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেস ৫৪ জন নারীকে টিকিট দিয়েছিল। বিজেপির নারী প্রার্থী ছিলেন ৫৩ জন। এছাড়া বিএসপি দাঁড় করিয়েছিল ২৪ জন এবং তৃণমূলের হয়ে লড়েছিলেন ২৩ জন মহিলা প্রার্থী। সে সাথে সিপিএম ১০ জন, সিপিআই ৪ জন এবং এনসিপি একজন মহিলা প্রার্থীকে টিকিট দিয়েছিল। এছাড়া ২২২ জন নির্দলীয় নারী প্রার্থী ছিলেন এই নির্বাচনে।

অপরদিকে এবারের লোকসভা নির্বাচনে মুসলিম সাংসদের সংখ্যা বেড়েছে বলেও তথ্য পাওয়া গেছে। এবার ২৭ জন মুসলিম সাংসদকে পেতে চলেছে সংসদের নিম্নকক্ষ। গতবারের তুলনায় মুসলিম সাংসদের সংখ্যা বেড়েছে ৪টি। তবে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল এই ২৭ জনের মধ্যে একজনও বিজেপির নন। বিজয়ীদের অধিকাংশই কংগ্রেস এবং তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিটে নির্বাচনে লড়েছেন। জানা যায়, বিজেপির ক্ষেত্রে এবার ২০১৪–এর পুনরাবৃত্তি হয়েছে। কাশ্মীরে তিনজন, বাংলায় দুইজন এবং লাক্ষাদ্বীপে একজন মুসলিম প্রার্থী দাঁড় করিয়েছিল বিজেপি। তবে প্রত্যেকেই জিততে ব্যর্থ। সেবারের মতো এবারও তাঁদের কোনও মুসলিম প্রার্থী জিততে পারেননি। এর আগে ১৯৮০ সালে রেকর্ডসংখ্যক ৪৯ জন মুসলিম সাংসদ পেয়েছিল দেশটি। সেটাই এখনও পর্যন্ত ভারতের লোকসভায় সর্বোচ্চ মুসলিম সাংসদ সংখ্যা।

প্রকাশিত সংবাদের তথ্য মতে, উত্তরপ্রদেশ এবং পশ্চিমবঙ্গে যেখানে মুসলিম জনসংখ্যা বেশি, সেখান থেকেই ছ’জন করে মোট ১২ জন মুসলিম প্রার্থী ভোটে জিতে সংসদে যাচ্ছেন। উত্তরপ্রদেশের গাজিপুর থেকে বসপার আফজল আনসারি, সাহারানপুর থেকে ফজলুর রহমান, আমরোহা থেকে দানিশ আলি জিতেছেন। এছাড়া রামপুর থেকে সমাজবাদী পার্টির হেভিওয়েট নেতা আজম খান, বর্ক সম্ভল থেকে শফিক রহমান এবং মোরাদাবাদ থেকে এসটি হাসান জিতেছেন। বাংলায় তৃণমূলের পাঁচজন এবং কংগ্রেসের একজন মুসলিম সাংসদ নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়া এআইএমআইএম–এর সুপ্রিমো আসাদউদ্দিন ওয়েইসি হায়দরাবাদ কেন্দ্র থেকে জিতে ফের একবার সাংসদ হয়েছেন।