শুক্রবার, ২৩শে আগস্ট, ২০১৯ ইং ৮ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

কসবায় সীমানা নিয়ে বিরোধের জেরে সাংবাদিককে পিটিয়ে হাত ভেংগে দিয়েছে

news-image

কসবা (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় বাড়ির সীমানা নিয়ে বিরোধের জেরে আনোয়ার হোসেন উজ্জল (৩২) নামে এক সাংবাদিককে পরিকল্পিতভাবে বেদড়ক পিটিয়ে তার হাত ভেংগে দিয়েছে প্রতিপক্ষ ভুমিদস্যুরা। গত শনিবার (৮ জুন) বাদৈর ইউনিয়নের শিকারপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহত সাংবাদিক ওই গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে। সে বিজয় টিভি’র ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি। এ ঘটনা ৯ জনকে আসামী করে থানায় মামলা করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে দু’জনকে আটক করে পুলিশ।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়; গত শনিবার সাংবাদিক আনোয়ার হোসেনের প্রতিবেশী ভুমিদস্যু সাজ্জাদ গংরা গত শনিবার পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে লোকজন নিয়ে পরিমাপ ছাড়াই আনোয়ারের বাড়ির ভিতরে সীমানা পিলার বসানোর চেষ্টা করে। এসময় আনোয়ার তাদের বাধা দেয়। সে প্রতিপক্ষকে পরিমাপের মাধ্যমে সীমানা পিলার বসাতে বলে।

এ সময় ক্ষিপ্ত হয়ে সাজ্জাদ গং দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে তার উপর ঝাপিয়ে পড়ে এবং পরিকল্পিতভাবে তাকে সহ তার পরিবারের লোকজনদের বেদড়ক পিটায়। এতে তার একটি ভেংগে যায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে কসবা উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত ডা: আসাদুজ্জামান তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে রেফার্ড করে। এ ঘটনায় কসবার সকল সাংবাদিক তীব্র নিন্দাসহ অবিলম্বে অভিযুক্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করছে।

কসবা থানা অফিসার ইনচার্জ আবদুল মালেক সাংবাদিকদের জানান; ঘটনার খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। ঘটনাস্থল থেকে আটককৃত দু’জনকে গতকাল রোববার বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। বাকীদের ধরার চেষ্টা অব্যাহত আছে।