শুক্রবার, ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং ৫ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নেতাদের হত্যার মাধ্যমে আওয়ামী লীগকে নেতৃত্বশূন্য করতে চেয়েছিল : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

news-image

নিজস্ব প্রতিবেদকে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এমপি বলেছেন, স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তি ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির পিতাকে সপরিবারে হত্যা করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ভূলুণ্ঠিত করতে চেয়েছিলো। একই অপশক্তি ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট জাতির পিতার সুযোগ্য উত্তরাধিকার জননেত্রী শেখ হাসিনাসহ আওয়ামী লীগের নেতাদের হত্যার মাধ্যমে আওয়ামী লীগকে নেতৃত্বশূন্য করতে চেয়েছিল। প্রতিবারেই তারা সাময়িক ভাবে সফল হলেও চূড়ান্তভাবে ব্যর্থ হয়। কিন্তু তাদের ষড়যন্ত্র এখনো চলছে। এসময় সকল ষড়যন্ত্রের প্রতি সতর্ক দৃষ্টি রাখার জন্য গণমাধ্যমকর্মীদের প্রতি আহবান জানান তিনি।

আজ দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাব জহুর হোসেন চৌধুরী মিলনায়তনে জাতীয় শোক দিবস ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর ৪৪তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক সভায় তিনি এ আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ সাংবাদিক অধিকার ফোরাম (বিজেআরএফ) ‘রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস ও গণমাধ্যম’ শীর্ষক এই আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে। সংগঠনের সভাপতি আজিজুল ইসলাম ভূইয়ার সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য রাখেন জাতীয় মহিলা শ্রমিক লীগের সভাপতি বেগম শামসুন নাহার ভূইয়া এমপি, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি মো. সাইফুল আলম, জাতীয় প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিন, উপজেলা চেয়ারম্যান এসোসিয়েশনের সভাপতি হারুন অর রশীদ হাওলাদার, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপকমিটির সদস্য বলরাম পোদ্দার, সার্ক ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ফোরামের মহাসচিব প্রকৌশলী মো. শামসুর রহমান, জাতীয় প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহেদ চৌধুরী, বঙ্গবন্ধ সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক অরুণ সরকার রানা , বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের সভাপতি লায়ন গণি মিয়া বাবুল প্রমুখ।

সভায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ফোরামের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান।

আ ক ম মোজাম্মেল হক আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় এসে জাতির পিতার হত্যাকান্ডের বিচার সমাপ্ত করেছে। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার বিচার প্রক্রিয়া চলমান আছে। ১৫ আগস্ট থেকে ২১ আগস্ট পর্যন্ত সকল হত্যাকারীকে বিচারের আওতায় আনতে সরকার দৃঢ়ভাবে অঙ্গীকারাবদ্ধ। যথাসময়ে সকল হত্যাকাণ্ডের বিচায় প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে। সভার শুরুতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজবুর রহমান, বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবসহ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট থেকে ২১ আগস্ট নিহত সকল শহীদদের আত্মার মাগফিরাত কামনা করা হয়।