সোমবার, ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং ৮ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ই’ভটিজিং করায় পুলিশকে তরুণীদের জুতাপেটা 

news-image

রাজশাহী মহানগরীতে মদ্যপ অবস্থায় ই’ভটিজিং করার অভিযোগে এক পুলিশ সদস্যকে জুতাপেটা করেছে কয়েকজন তরুণী।বৃহস্পতিবার (২৯ আগস্ট) রাত ১০টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর লক্ষ্মীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় চাঞ্চল্যকর এ ঘটনাটি ঘটেছে।এ ঘটনার পর মহানগরীর রাজপাড়া থানা পুলিশ ওই ইভটিজার পুলিশ কনস্টেবলকে আটক করে নিয়ে যায়।

জানা গেছে, অভিযুক্ত পুলিশ সদস্যের নাম সাব্বির হোসেন। রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) পবা থানায় কর্মরত ছিলেন তিনি। এ ঘটনার পর রাতেই তাকে পবা থানা থেকে প্রত্যাহার দেখানো হয়েছে। এখন তাকে রাজশাহী মহানগর পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে। কনস্টেবল সাব্বির হোসেনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে আরএমপি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, অভিযুক্ত সাব্বির হোসেন মহানগরীর লক্ষ্মীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় একটি বাসায় পরিবার সহ নিয়ে ভাড়া থাকেন। তিনি প্রায় প্রতিদিনই বাজারে বসে নারীদের উত্তক্ত্য করতেন। বৃহস্পতিবার রাতেও মদ্যপ অবস্থায় এলাকার এক তরুণীকে কটূক্তি করেন এই কনস্টেবল।

পরে ওই তরুণী পায়ের জুতা খুলে পুলিশ সদস্য সাব্বিরকে পেটাতে শুরু করেন। এ সময় তার সঙ্গে আরও কয়েকজনতরুণীও তাকে পেটান। এ ঘটনাটি দেখে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসেন। তখন পালিয়ে গিয়ে একটি বাসায় ঢুকেন পড়েন সাব্বির হোসেন। কিন্তু এলাকার লোকজন ওই বাড়িটি ঘিরে রাখেন। যা উত্তেজনায় রুপ নেয়। এ খবর পেয়ে রাজপাড়া থানা পুলিশের একটি দল কনস্টেবল সাব্বিরকে বাড়ি থেকে আটক করে নিয়ে যায়। এরপরওই এলাকার পরিস্থিতি শান্ত হয়।

জানা যায়, সাব্বির মাদক সেবন করেছেন কিনা তা জানতে ‘ডোপ টেস্ট’ করানোর জন্য আটকের পর রাত ১১টার দিকে পুলিশ সদস্যকে লক্ষ্মীপুর এলাকায় ‘পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার’ নামের একটি রোগ নির্ণয় কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু ততক্ষণে রোগ নির্ণয় কেন্দ্রটি বন্ধ হয়ে যায়।

রাত ১১টা ১৫ মিনিটে পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারের সামনে পুলিশের পিকআপ ভ্যানে সাদাপোশাকে কনস্টেবল সাব্বির হোসেনকে বসে থাকতে দেখা যায়। ওই সময় গাড়ির পাশে দাঁড়িয়ে রাজপাড়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) হায়দার আলী খান মুঠোফোনে তার ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলছিলেন। পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধের বিষয়টি জানিয়ে তিনি এখন তাদের করণীয় সম্পর্কে জানতে চাইছিলেন।

এ সময় কনস্টেবল সাব্বির হোসেনের কাছে ঘটনার বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, এটা একটা দুর্ঘটনা। সাব্বির বলেন, ‘অল্প একটু খাই। এ সময় সাংবাদিক দেখে পিকআপ ভ্যানটি দ্রুত সেখান থেকে রাজপাড়া থানায় নিয়ে চলে যাওয়া হয়।’ এ সময় সাংবাদিক দেখে পিকআপ ভ্যানটি দ্রুত সেখান থেকে রাজপাড়া থানায় নিয়ে চলে যাওয়া হয়।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস শুক্রবার (৩০ আগস্ট) সকালে বলেন, কনস্টেবল সাব্বির হোসেনের বিরুদ্ধে কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি। কিন্তু যেহেতু একটা অভিযোগ উঠেছে তাই তাকে থানা থেকে রাতেই প্রত্যাহার করা হয়েছে। এরপর তাকে পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সূত্রঃ বিডি২৪লাইভ

এ জাতীয় আরও খবর

যশোরে বাচ্চাকে মারধর করায় দলবল নিয়ে থানায় হনুমান

‘মন্ত্রী ফোন দিলেই ধরি না, তোমাদের মতো সাংবাদিকদের কাছে কী জবাব দেব?’

মধ্যরাতে বনানীতে ভিসিপুত্রের কাণ্ড!

যুদ্ধ শুরু হলে তার কোন সীমানা থাকবে না: জারিফের হুঁশিয়ারি

আল্লাহ ও ইসলামকে নিয়ে ফেসবুকে কটুক্তি করে প্রভাষক

৫৪ বছর পর চালু হচ্ছে বাংলাদেশ-দার্জিলিং ট্রেন

সরাইলে আ’লীগ নেতার বিরুদ্ধে অপপ্রচার, সম্মিলিত নাগরিক সমাজের প্রতিবাদ সমাবেশ

চার ক্লাবে মিলল টাকা, মদ, সিসা, ক্যাসিনো-জুয়ার সামগ্রী

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাদক ব্যবসায়ী, পাচারকারীদের বাড়ি চিহ্নিতকরণ শুরু

পাকিস্তানে বাস দুর্ঘটনায় নিহত ২৬

জয়নাল-ফারুকের ভয়ঙ্কর তথ্য : রোহিঙ্গা এনআইডি তৈরিতে ইসির ২০ জন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ডিভাইস ব্যাপ ও মাদক কেমিক্যালসহ আটক ২ জনকে দন্ড